পর্যটকবাহী জাহাজ ঘাটে স্থাপনা উচ্ছেদ

16

হেলাল উদ্দিন: কক্সবাজার-টেকনাফ আঞ্চলিক সড়কের হ্নীলার দমদমিয়া পযটকবাহী জাহাজ ঘাটে সড়ক ও জনপথ বিভাগের জমি অবৈধভাবে দখল করে দোকানপাট গড়ে তোলায় ৩০টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। একই সঙ্গে টেকনাফের হ্নীলা বাজারে তিনটি সারের দোকানে অভিযান চালিয়ে ১২ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

বুধবার বেলা ১১টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত এই অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. এরফানুল হক চৌধুরী।

দু’টি অভিযানে সাথে ছিলেন হ্নীলা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রাশেদ মাহমুদ আলী।

উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. এরফানুল হক চৌধুরী বলেন, টেকনাফ-কক্সবাজার আঞ্চলিক সড়কের দমদমিয়া পর্যটকবাহী জাহাজ ঘাটে উভয়পাশের সড়ক ও জনপদ বিভাগের জমি দখল করে গড়ে তোলা হয়েছে অবৈধ স্থাপনা। ফলে প্রতিদিন এ সড়কে দীঘ যানজট সৃষ্টির পাশাপাশি মানুষের বিভিন্ন ধরনের ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছিল।

দখলকারিদের একাধিকবার স্থাপনা সরিয়ে নিতে বলা হলেও কোনো ধরনের ব্যবস্থা না নেওয়াই আজ দুপুরে টানা অভিযান চালিয়ে ৩০টি দোকান ও স্থাপনা (বিভিন্ন গাড়ির টিকেট কাউন্টার) উচ্ছেদ করা হয়। প্রতিদিন সকাল ও বিকেলে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচলের কারণে এখানে যানবাহন বেড়ে যায়। ওই সময় পযটকের আনা-গোনা এবং যানবাহনের পাকিং এর ফলে সড়কের দীঘ যানজট সৃষ্টি হয়। এ থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য সড়কের উভয় পাশের ৩০টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. এরফানুল হক চৌধুরী বলেন, বুধবার বিকেলে উপজেলার হ্নীলা বাজারের সরকার নির্ধারিত দামের থেকে বেশি দামে সার বিক্রয় ও মেয়াদোত্তীর্ণ বিষের বোতল বিক্রির অভিযোগে তিনটি দোকানের মালিকপক্ষকে ১২ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। দাম অসামঞ্জস্যপূর্ণ, ক্রয় বিক্রয় রশিদ দেখেন কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করার চেষ্টা এবং ক্রেতার সাথে দাম নিয়ে প্রবঞ্চনা করার তালিকা দোকানে সামনে দেওয়ার জন্য নিদেশনা দেওয়া হয়েছে।