প্রধানমন্ত্রী সু স্পষ্ট ভাবে বলতে পারেননি আসলে উনি ভারত সফরে গিয়ে কি কি নিয়ে এসেছেন

ঠাকুরগাঁওয়ে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর

নির্বাচন কসিশনের রোড ম্যাপ সম্পর্কে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আমরা নির্বাচন কমিশনকেই মানিনা। সেখানে নির্বাচন কমিশনের বা নির্বাচনী রোডম্যাপ সম্পর্কে আমাদের কোন বক্তব্য নেই।

গতকাল বুধবার বিকেল ৫ টায় ঠাকুরগাঁওয়ের কালিবাড়িস্থ তার নিজ বাস ভবনে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি৷

নির্বাচন বিষয়ে মির্জা ফখরুল আরো বলেন, শেখ হাসিনার অধীনে বা দলীয় সরকারের অধীনে কোন নির্বাচনে যাবেনা বিএনপি এটা আমাদের স্পষ্ট বক্তব্য। নির্বাচন কালীন সময়ে একটি তত্বাবধায়ক সরকার অর্থাৎ নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন না হলে সে নির্বাচন কখনই গ্রহণযোগ্য ও অবাধ সুষ্ঠু হবেনা। আর দেশের মানুষও এতে অংশ নিবেনা।

ঠাকুরগাঁও জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের প্রার্থী বাদে অন্য প্রার্থীদের নোমিনেশন জমা দিতে বাধা ও প্রার্থী না হতে বল প্রয়োগ করা হচ্ছে প্রসঙ্গে তিনি বলেন, কোন নির্বাচনেই তাদের প্রতিদ্বন্দী প্রার্থী দেখতে চাননা আওয়ামীলীগ। বিনা প্রতিদ্বন্দীতায় রাষ্ট্রযন্ত্রের অপব্যবহার করে বিনা প্রতিদ্বন্দীতায় জয়লাভ করতে চায় তারা এবং এাঁতেই তারা অভ্যস্থ।

ভারত সফর শেষে প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন নিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, ভারত থেকে কিছুই আনতে পারেননি প্রধানমন্ত্রী। আমাদের যে তিস্তার পানি সমস্যা এবং অভিন্ন নদীগুলোর সমস্যা, সীমান্ত হত্যা সমস্যা, এসব বিষয় সমাধান আনতে পারেননি প্রধানমন্ত্রী। আজকে প্রধানমন্ত্রী প্রেস কনফারেন্সে সু স্পষ্ট ভাবে বলতে পারেননি আসলে উনি ভারত সফরে গিয়ে কি কি নিয়ে এসেছেন বাংলাদেশের মানুষের জন্য।

এসময় ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপির সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা তৈমুর রহমান, সাধারন সম্পাদক মির্জা ফয়সল আমিন সহ দলটির অন্যান্য নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।